Saturday, August 1, 2020

প্লাজমা দেওয়ার কথা বলে টাকা নিতেন তিনি

- Advertisement -
- Advertisement -

করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে কোনো রোগীর শারীরিক অবস্থা যখন গুরুতর হয় তখনই তাকে প্লাজমা দেওয়া হয়। তবে সেটি সংগ্রহ করতে হয় রোগীর স্বজনদেরই। তাদের অনেকেই শরণাপন্ন হন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের বিভিন্ন গ্রুপে। আর এদের অনেকেই প্রতারিত হন সেখানে ওত পেতে থাকা প্রতারকদের কাছে। প্লাজমা দেওয়ার মিথ্যা আশ্বাস দিয়ে টাকা নিয়ে সটকে পড়েন এই প্রতারকেরা।

প্রতারণার এমন অভিযোগে শরিফ খান ওরফে বাবু (৩২) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে মতিঝিল এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। শরিফের বাড়ি চাঁদপুরের কচুয়া থানার গোলবাগে। ঢাকার বিভিন্ন স্থানে সময়ে সময়ে তিনি অবস্থান করতেন। এই শহরে তার কোনো স্থায়ী আবাস তাই পাননি গোয়েন্দারা। তার বিরুদ্ধে মতিঝিল থানায় একটি মামলা হয়েছে। আজ শুক্রবার তাকে আদালতে তুলে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিন দিনের রিমান্ড চাওয়া হয়। আদালত রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর না করে তাকে কারাগারে পাঠিয়ে দেন।

গোয়েন্দা কর্মকর্তারা জানান, ‌‌‌‍”প্লাজমা ব্যাংক অব বাংলাদেশ (কোভিড-১৯)” নামে ফেসবুকে একটি গ্রুপ আছে। গ্রুপটির সদস্য সংখ্যা প্রায় দুই লাখ। করোনায় আক্রান্ত কোনো রোগীর প্লাজমার প্রয়োজন হলে তার স্বজনেরা এই গ্রুপে রক্তের গ্রুপ লিখে সহযোগিতা চান। সঙ্গে তারা নিজেদের ব্যক্তিগত মুঠোফোন নম্বরও দিয়ে দেন। প্রতারকেরা তখন এসব মুঠোফোন নম্বরে যোগাযোগ করেন। এ ক্ষেত্রে তারা সেসব স্বজনদের সঙ্গে যোগাযোগ করেন যারা দুর্লভ রক্তের গ্রুপের (এ নেগেটিভ, বি নেগেটিভ, ও নেগেটিভ, এবি নেগেটিভ) প্লাজমা চেয়ে পোস্ট দেন।

ডিবির তেজগাঁও অঞ্চলের সহকারী কমিশনার মুজিব আহম্মদ পাটওয়ারী প্রথম আলোকে বলেন, স্বজনদের সঙ্গে যোগাযোগ করে প্রতারকেরা তাদের অবস্থান জানতে চান। স্বজনরা যদি তাদের অবস্থান চট্টগ্রাম বলেন, প্রতারকেরা তখন তাদের অবস্থান দূরবর্তী কোনো জেলার কথা বলেন। তারা তখন গাড়ি ভাড়া বাবদ কিছু অর্থ তাদের পাঠাতে বলেন। স্বজনেরা সেই অর্থ মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে পাঠানোর পরই প্রতারকেরা টাকা নিয়ে ফোন বন্ধ করে দেয়।

পুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, প্রতারিত হয়ে ‌‌‌‍”প্লাজমা ব্যাংক অব বাংলাদেশ (কোভিড-১৯)” গ্রুপের অ্যাডমিনের কাছে ভুক্তভোগীরা অভিযোগ করেন। তার কাছ থেকে মুঠোফোন নম্বর নিয়ে তদন্ত শুরু করেন তারা। একপর্যায়ে শরিফ খানকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হন। শরীফ খান প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অন্তত ২০-২২ জনের সঙ্গে এমন প্রতারণা করেছে বলে জানিয়েছে। এমন আরও অনেক প্রতারক আছে। তাদের গ্রেপ্তারের চেষ্টাও অব্যাহত আছে বলে জানান তিনি।

 

- Advertisement -

Latest news

আদর্শ মা-নানিরা যা শিখিয়ে দেন বিয়ের রাতে কন্যাকে

আদরের নন্দিনী মেয়েকে চিরতরে একজনের কাছে তুলে দিতে একজন মায়ের কী কষ্ট লাগে, মমতাময়ী জননীর তখন কী আবেগের ঢেউ খেলে যায়, তাঁর চোখে তখন...
- Advertisement -

যে ভাবে হস্তমৈথুন করে মেয়েরা বেশি আনন্দ পায় ! জানলে অবাক হয়ে যাবেন

যোনিদ্বার বা ভালভা এবং ক্লিটোরিস উত্তেজিত করেই মূলত মেয়েরা হস্তমৈথুন করে থাকে। হাতের একটি বা দু্টি আঙ্গুল বুলিয়ে (বা ঘষে) সহজেই ভালভা এবং ক্লিটোরিস...

পুরুষের যৌবন ক্ষমতা বাড়াবে ১ টুকরো আদা ও রসুন, কিন্তু কখন কিভাবে খাবেন?দেখে নিন এক নজরে

আদা ও রসুন ছাড়া বাঙালির রান্না-ঘর ভাবাই যায় না। সু-স্বাদু রান্নার জন্য রান্না ঘরে আদা, রসুন চাই-ই চাই। কিন্তু আদা ও রসুন শুধু খাবারের...

ছেলেদের মধ্যে যা পেলে মেয়েরা দুর্বল হয়ে যায়

ছেলেদের কিছু গুন মেয়েদেরকে আকৃষ্ট করে, দুর্বল করে তোলে। ছেলেদের কাছে এ বিশেষ গুনগুলো থাকলে তার প্রতি অনেক মেয়ের ভালবাসা জাগে। এ গুনগুলোর মধ্যে...

Related news

আদর্শ মা-নানিরা যা শিখিয়ে দেন বিয়ের রাতে কন্যাকে

আদরের নন্দিনী মেয়েকে চিরতরে একজনের কাছে তুলে দিতে একজন মায়ের কী কষ্ট লাগে, মমতাময়ী জননীর তখন কী আবেগের ঢেউ খেলে যায়, তাঁর চোখে তখন...

যে ভাবে হস্তমৈথুন করে মেয়েরা বেশি আনন্দ পায় ! জানলে অবাক হয়ে যাবেন

যোনিদ্বার বা ভালভা এবং ক্লিটোরিস উত্তেজিত করেই মূলত মেয়েরা হস্তমৈথুন করে থাকে। হাতের একটি বা দু্টি আঙ্গুল বুলিয়ে (বা ঘষে) সহজেই ভালভা এবং ক্লিটোরিস...

পুরুষের যৌবন ক্ষমতা বাড়াবে ১ টুকরো আদা ও রসুন, কিন্তু কখন কিভাবে খাবেন?দেখে নিন এক নজরে

আদা ও রসুন ছাড়া বাঙালির রান্না-ঘর ভাবাই যায় না। সু-স্বাদু রান্নার জন্য রান্না ঘরে আদা, রসুন চাই-ই চাই। কিন্তু আদা ও রসুন শুধু খাবারের...

ছেলেদের মধ্যে যা পেলে মেয়েরা দুর্বল হয়ে যায়

ছেলেদের কিছু গুন মেয়েদেরকে আকৃষ্ট করে, দুর্বল করে তোলে। ছেলেদের কাছে এ বিশেষ গুনগুলো থাকলে তার প্রতি অনেক মেয়ের ভালবাসা জাগে। এ গুনগুলোর মধ্যে...
- Advertisement -

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here